মহাকাশে যাচ্ছেন সৌদি নারী

মহাকাশে যাচ্ছেন সৌদি নারী

মহাকাশে যাচ্ছেন সৌদি নারী

মহাকাশে যাচ্ছেন সৌদি নারী

প্রথমবারের মতো মহাকাশে যাচ্ছেন সৌদি নারী। আমেরিকান স্পেস এজেন্সি নাসা জানায়, রায়না বার্নাভি (৩৩) নামের এক সৌদি তরুণী ২১ মে আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনের (আইসিসি) উদ্দেশ্যে রওনা দেবেন। সৌদি আরবের আরেক মহাকাশচারী আলী আল-কারনি এ সময় তার সঙ্গে থাকবেন। . সেখানে তারা AX-২ মহাকাশ মিশনে থাকা নভোচারীদের সাথে যোগ দেবেন। তাদের বহনকারী রকেটটি যুক্তরাষ্ট্রের কেনেডি স্পেস সেন্টার থেকে উৎক্ষেপণ করা হবে।

রায়না বারনাভি একজন স্তন ক্যান্সার গবেষক। মহাকাশচারী পেগি হুইটসন এবং ধনকুবের পাইলট জন শ্যাফনার এই ১০ দিনের মহাকাশ মিশনে তাদের সাথে থাকবেন।

সংযুক্ত আরব আমিরাত ২০১৯ সালে একটি মহাকাশ অভিযান শুরু করা উপসাগরীয় অঞ্চলের প্রথম দেশ হয়ে উঠেছে। সেই বছরই দেশটির একজন মহাকাশচারী মহাকাশে গিয়েছিলেন। দেশটির মহাকাশচারী হাজ্জা আল-মানসুরি আট দিন আইএসএস-এ অবস্থান করেছিলেন।

আমিরাতের মহাকাশচারী সুলতান আল-নিয়াদি পরে মহাকাশে যান। তিনিই প্রথম আরব নভোচারী যিনি টানা ছয় মাস মহাকাশে অবস্থান করেছিলেন।

এর আগে ১৯৮৫ সালে, সৌদি আরবের তৎকালীন ক্রাউন প্রিন্স, সুলতান বিন সালমান বিন আব্দুল আজিজ মার্কিন মিশনের অংশ হিসাবে মহাকাশে ভ্রমণকারী প্রথম আরব মুসলিম ছিলেন।

তিনি সৌদি বিমান বাহিনীতে পাইলট ছিলেন। ২০১৮সাল থেকে সৌদি আরব আবার মহাকাশে নভোচারী পাঠানোর উদ্যোগ শুরু করে। এই মহাকাশ মিশনটি যুবরাজ সালমানের ভিশন ২০২৩ এজেন্ডার অংশ

    Leave a Reply

    Your email address will not be published.

    X